The dishonesty of our anti communalism discussion

Members of the Hindu community returning to Obhoynagar, Jessore. Many of their homes were gutted and looted by Jamaat-Shibir activists right after the national polls. Photo source: Dhaka Tribune.

Members of the Hindu community returning to Obhoynagar, Jessore.Photo source: Dhaka Tribune.

The Dishonesty in our Anti-Communalism Discussions
by Zia Hassan. Translated by Tibra Ali for AlalODulal.org

There is a dishonesty in anti-communalism discussions in Bangladesh. And it is that we prefer to see acts of communal violence as political acts in order to score some political points — It is a convenient thing to do, and in this way we are able to hit some political opponents — One side blames Jamaat, while the other side argues that these acts must have been committed under the protection of the Awami League and therefore the Awami League must take responsibility for them. But we avoid and gloss over the fact that we, especially the Bengali Muslim society, are inherently communal in our mentality.

The real reason is that admitting that the problem arises from the our narrow and unenlightened Bengali mentality is an obstacle in our political pillow passing game.

Here I am not talking of absolving Jamaat and Shibir from their extremist religious fundamentalism.

It is certainly true that the context for the post-election attacks on the Hindu community by Jamaat-Shibir-BNP activists, and yesterday’s attacks on the some of the Hindu communities in the country is political. No doubt that communalism has a political dimension. But we must understand that the political is but a layer.

And the extent of communalism at the level of society and the individual is deeper and wider compared to this political layer. And the great risk and the origin of the problem is at that deeper level — inside you and me.

And it’s the political people who take advantage of this existent social communal enmity— to instigate the attacks as well as to take advantage after the attacks. Therefore, it is more beneficial to them if these acts are seen as political acts.

Therefore after each attack on any minority group, or attacks on Hindus by Muslims, people belonging to the BNP or Basher Kellah group are eager to prove that Bangladesh is the most communally harmonious country on earth and that these attacks are all due to conspiracies by India — or orchestrated by the Awami League themselves. Their aim is to give it a political dimension. But they are loathed to admit that in every house of the Bengali Muslim live communal hatred.

And there are many so-called seculars for whom the communal attacks are but fashion statements. They have already proved themselves to be the worst kind of racists by calling for the deaths of 3/4 lakh (3-400,000) people in the new “Liberation War”. And, instead of feeling saddened, they become ecstatic at the opportunity for political vilification wherever there are incidents of communal attacks on minorities – for them all of the past attacks, including Ramu and Sathia are but political acts.

By looking at them it is clear that although secularism that comes from liberalism feels outrage at all forms of inequality, political secularism only feels angst only when Hindus get attacked by Muslims.

However, these political seculars, in their attempt to prove communal violence as political acts, never mention the fact that after the destruction of the Babri Mosque there were widespread attacks on Hindus in many different communities of Bangladesh. Yet, that was the largest event of communal violence in the recent history of Bangladesh.

As a result of this the police realizes quickly that they won’t have to search for the guilty parties, and in the area that has been affected, they suddenly gain access to a large “capital” for their business of logging false cases — and the same pattern of events keep repeated at regular intervals in different areas. If we really had sincerity, we would have brought to justice the culprits from the previous attacks. And the attacks would have stopped from fear of law and enforcement at least.

That’s why we are eager to release ourselves of responsibility — that’s why we keep returning to 2002 or keep repeating that the attackers involved in Sathia were seen with the Awami League junior minister Tuku — but we never examine our own faces in the mirror.

In order to reform the racist that lives inside us, we have to gain deep knowledge, we have to practice frank equality, we have to cultivate intellectual honesty — but instead the country is immersed in darkness today — and those who are supposed show the the light are instead hunting for enemies with burning torches in their hands today. As a result we can safely say that this much needed internal reform is but a faraway dream right now.

Therefore, the events and the statuses that I am seeing today on Facebook, I am not able to tell which of them are genuine and which are fashion statements, but if we don’t admit to the racial and religious enmity inside our Bengali society and if we don’t reform the law-enforcing institutions of the country, then our goldfish like attention span will only revolve around today’s communal attacks, tomorrow’s long march, day-after-tomorrow’s Rampal or something else. But the main problem will not be solved and attacks on the vulnerable minority Hindu communities of the country at the hands Muslim majority will continue to happen.

বাংলাদেশের সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী আলোচনাটায় একটা ডিজহনেস্টি আছে

− জিয়া হাসান

বাংলাদেশের সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী আলোচনাটায় একটা ডিজহনেস্টি আছে-

সেইটা হইলো সাম্প্রদায়িক ঘটনার রাজনৈতিক সুবিধা নেয়ার আশায় সাম্প্রদায়িক ঘটনাকে আমরা পলিটিকাল হিসেবে দেখা পছন্দ করি – আরাম হয়, কিছু পলিটিকাল প্রতিপক্ষ মারা যায় –এক পক্ষ জামাত শিবিরকে গালি দেয়, আরেক পক্ষ এইটা নিশ্চয়ই আওয়ামী ছত্রছায়ায় হইছে বলে আওয়ামী লিগ এর ঘাড়ে দোষ চাপায় দেয় -কিন্তু, আমরা নিজেদের মধ্যে বিশেষত বাঙালি মুসলমান সমাজের মধ্যে যে বিল্ট ইন সাম্প্রদায়িক মানসিকতা আছে তাকে উপেক্ষা করা হয় ।

কারণ সমস্যাটা যে সংকীর্ণমনা বাঙালি মানস এবং কুশিক্ষা সমস্যা থেকেই উদ্ভূত সেইটা স্বীকার করলে আমাদের পলিটিকাল পিলো পাসিং খেলায় অসুবিধা হয়।

এই খানে জামাত শিবির কিংবা চরমপন্থি মৌলবাদীদেরকে তাদের দায় থেকে মুক্তি দেয়ার কথা হচ্ছেনা।

নির্বাচন এর পরে, হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর জামাত শিবির এবং বিএনপির লোকজনের হামলার যে প্রেক্ষাপট এবং গত দিনের সিলেক্সানের নিরবাচনের পরে দেশের বেশ কিছু এলাকায় হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর হামলা হইছে তা অবশ্যই রাজনৈতিক । সাম্প্রদায়িকতার অবশ্যই একটা রাজনৈতিক রূপ আছে, সেইটাকে অস্বীকার করা হচ্ছেনা । কিন্তু, বুঝতে হবে যে সেইটা একটা লেয়ার মাত্র।

এবং এই লেয়ারের গভীরতা এবং ব্যাপ্তি যত ব্যাপক –সামাজিক পর্যায়ে ব্যক্তির মধ্যে সাম্প্রদায়িকতাটার গভীরতা এবং ব্যাপ্তি আরো বেশি । এইটার রিস্ক ও অনেক বেশি এবং সমস্যার গোরাটা ওই খানেই – আপনার আমার ভেতরে ।

এবং সামাজিকভাবে সাম্প্রদায়িক ঘৃণার উপস্থিতির সুযোগটা নেয় পলিটিকাল লোকজন –ঘটনা ঘটাতে এবং ঘটার পর তার এডভান্টেজ নিতে –উভয় ক্ষেত্রেই। ফলে, এইটা যত বেশি পলিটিকাল দেখানো যায় তত তাদের লাভ।

তাই প্রতিটা সাম্প্রদায়িক হামলার পর, বা মুসল্মান জনগোষ্ঠীর হাতে হিন্দু বা অন্য ধরমালম্বির উপর হামলার পর বিএনপির সাপোর্টার আর বাসের কেল্লা গ্রুপ এর লোক জন প্রমাণ করতে উদ্যোগী হয় যে, বাংলাদেশ হইলো পৃথিবীর সব চেয়ে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ-এই ঘটনা গুলো সব ইন্ডিয়ার ষড়যন্ত্র –অথবা আওয়ামী লিগ এর নিজের করা। তাদেরও উদ্দেশ্য থাকে, এইটাকে পলিটিকাল রূপ দেয়া। কিন্তু, তাদের মত বাঙালি মুসলমানের মনের মধ্যে ঘরে ঘরে সাম্প্রদায়িক বিদ্বেষটার উপস্থিতি তারা স্বীকার করে না ভুলেও।

আর, তথাকথিত অনেক সেকুলার আছে, তাদের কাছে সাম্প্রদায়িক হামলার ঘটনা গুলো হইলো ফ্যাশন স্টেটমেন্ট। তাদের মধ্যে অনেকেই এই দেশে ৩/৪ লক্ষ মানুষ হত্যা করে নতুন মুক্তিযুদ্ধের আহবান জানিয়ে প্রমাণ করে যে তারা নিকৃষ্ট প্রজাতির রেসিস্ট। এবং সাম্প্রদায়িক হাঙ্গামা নিয়ে ঘটলে তারা যেন দুঃখিত হওয়ার বদলে, রাজনৈতিক ভিলিফিকেসানের সুযোগে উল্লসিত হয়ে ওঠে – তাদের কাছে রামু, সাথিয়া , বিগত দিনের ঘটনা সব রাজনৈতিক ।

তাদেরকে দেখে বোঝা যায়, লিবেরালিজম থেকে যেই সেকুলারিজম আসে, তা সকল অসাম্যে ক্ষুব্ধ হয় আর পলিটিকাল সেকুলারিজম শুধু মাত্র মুসলমানদের হাতে হিন্দুদের উপর হামলায় ক্ষুব্ধ হয় ।

এই পলিটিকাল সেকুলাররা সকল সাম্প্রদায়িকতাকে রাজনৈতিক প্রমান করার বাসনায় কখনো বাবরি মসজিদের ধংশ হওয়ার পরে দেশের জনপদে জনপদে হিন্দু সম্প্রদায়ের লোক এর উপর মুসলমানদের হামলার কথা উচ্চারণ করেনা। অথচ,বাংলাদেশের নিকট ইতিহাসে সব চেয়ে বড় সাম্প্রদায়িক সহিংসতার উদাহরণ –সেই ঘটনা।

এর ফলে লাভ যেইটা হয়, পুলিশ বুঝে যায় তাদের আর দোষী খুঁজতে হবেনা এবং যেই এলাকায় ঘটনা ঘটেছে, সেই এলাকার পুলিশ মামলা ব্যবসা করার বিশাল পুজি পেয়ে যায় –এবং একই ধরনের ঘটনা অঞ্চলে অঞ্চলে সুনির্দিষ্ট বিরতিতে ঘটতেই থাকে।

আন্তরিকতা থাকলে, আমরা ইতিপূর্বের ঘটনা গুলো বিচার করতাম। এবং অন্তত বিচার এর ভয়ে এই ধরনের হামলা বন্ধ হত।

তাই আমরা নিজেদেরকে নিষ্কৃতি দিয়ে চাই –তাই আমরা বারে বারে ২০০২ সালে ফিরে যাই অথবা আওয়ামী লিগ রে প্রতিমন্ত্রী টুকুর সাথে সাথিয়ার যেই সব হামলাকারীদের দেখা গ্যেছে তার উদাহরণ –কিন্তু আয়নায় নিজেদের চেহারা দেখি না।

আর আমাদের মধ্যে যে অন্তর্গত রেসিস্ট আছে, তাকে সংস্কার করতে হলে অনেক গভীর জ্ঞান এর চর্চা, অনেক সৎভাবে সাম্যের চর্চা, অনেক বিস্তৃত মুক্তবুদ্ধির চর্চা করতে হবে – আজকে দেশে একটা গভীর অন্ধকার – যাদের আলো জ্বালানোর কথা তারাই মশাল জ্বেলে শত্রু খুঁজে তাদের নিধন করছে – ফলে এই অন্তর্গত সংস্কার এখন দিল্লি দূর অস্ত।

তাই, আজকে ফেসবুকে এসে যেই সব স্ট্যাটাস বা ইভেন্ট দেখছি সেই গুলোর মধ্যে কোনটা ফ্যাশন স্টেটমেন্ট কোনটা হনেস্ট তা বলতে পারবোনা কিন্তু, এইটা বলতে পারি বাঙালি সমাজের অন্তর্গত রেস হেট কে স্বীকার না করলে এবং রাষ্ট্রের আইন প্রয়োগ করি ইন্সটিটিউশন গুলো সংস্কার না করলে গোল্ডফিশ জাতির এটেনশেন আজকে সাম্প্রদায়িক হামলা, কালকে লং মার্চ , পরশু রামপালে বা অন্য কিছুতে ঘুরতে থাকবে কিন্তু মূল সমস্যার কোন সমাধান হবেনা এবং সংখ্যাগুরু মুসলমানদের হাতে রাষ্ট্রের নাজুক জনগোষ্ঠী দরিদ্র হিন্দুদের উপর হামলার ঘটনা ঘটতেই থাকবে।

5 thoughts on “The dishonesty of our anti communalism discussion

  1. “that in every house of the Bengali Muslim live communal hatred.”- I do not agree with you. This is the way people like you try to demean our country in the eyes of the world. I started reading the article believing that your perspective will be unbiased. There is communal hatred going on but it’s not ” ghore ghore”. When you write something in English people all over the world has access to it, do not portray our country in a way, that blackens it’s image , specially when it is not factual!

    • We are trying to get a discussion going here about the root causes of communalism and get to the truth of the matter. I think these acts of communalism do more to harm Bangladesh’s “image” abroad than an honest and frank article like this one.

      If we worried as much as the root causes of communalism as we do about our image abroad, we would be a much more healthy society.

  2. I think the author points out a very valid condition that societies carry within them, that can be said about any and most cultures (racial minority and discrimination in the US for example). I am no one to judge wether it is “ghore, ghore” but I feel that this is something that will always be there in societies. Education and enlightenment may hope to one day change these attitudes deep rooted in many cultures, color of skin, race and or religion.

    I was very fortunate to have experienced a different bangladesh (not good or bad but different), where I had felt a better sense of being a bangladeshi (maybe I was young and did not see or understand things the way I do know), but I must say that I never personally felt I was any different being a muslim. I had a ‘hujur’ came to the house to teach me how to read the Koran, I had a tutor who has influenced a lot in my education from metric to intermediate and my future success in higher education in life (he was Hindu! and I am still in touch with him 25 tears now) and I attended a catholic missionary school in Dhaka Mohamedpur. I remember attending many celebrations such as puja’s, and attended jamaats not because I was interested in the religious aspects but to understand what it was to be a bangladeshi, as these where all part of my culture and identity.

    When I came abroad for higher education, I was proud to say that I am a Bangladeshi! Especially with all that was going on in the middle-east, 911, iraq, afghanistan, pakistan, I would be proud to say that I am from a country where where hindus, muslims and christians all get along.

    It is so sad to read and see what is going on in Dhaka today, and the worst is that it is all done for political gain, power and oppression! I hope and prey for a better future for our country.

  3. Yes, We must look into our individual and collective consciousness/ unconsciousness/psyche to locate and purge our deep seated racism and murderous bigotry. However, we should also take care not to think of them as our natural or inevitable character/condition/essence. We acquired those characters/conditions through specific historical and political processes. Our critiques then also must be against those concrete ideologies, events, and persons who advance, perpetuate, and profit from racism and hatred.
    Guilt can be pathological and paralyzing. Concluding that we are all little bit racist and, thus, naturalizing racism will keep racism alive.

  4. Pingback: Partha Sarker: Communalism Report | ALAL O DULAL

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s